× ই-পেপার প্রচ্ছদ বাংলাদেশ রাজনীতি দেশজুড়ে বিশ্বজুড়ে বাণিজ্য খেলা বিনোদন মতামত চাকরি ফিচার চট্টগ্রাম ভিডিও সকল বিভাগ ছবি ভিডিও লেখক আর্কাইভ কনভার্টার

ফিজ-পাথিরানা— বন্ধুত্ব ভোলার ম্যাচ

প্রবা প্রতিবেদক

প্রকাশ : ০৭ জুন ২০২৪ ১৮:৩১ পিএম

আপডেট : ০৭ জুন ২০২৪ ১৮:৪৫ পিএম

দুজনের এবার দ্বৈরথ দেখা যাবে ডালাসে— প্রবা কোলাজ

দুজনের এবার দ্বৈরথ দেখা যাবে ডালাসে— প্রবা কোলাজ

চেন্নাই সুপার কিংসের ফেসবুকে নজর রাখলে একটি ভিডিও চোখে পড়ার কথা। মুস্তাফিজুর রহমান ও মাথিশা পাথিরানা দেয়ালের পাশ থেকে উঁকি মারছেন। ব্যাকগ্রাউন্ডে বাজছে ট্র্যাডিশনাল সং। ফিজের মুখ ক্যামেরায় ভেসে উঠতেই দেখা যাচ্ছে গম্ভীর আর পাথিরানার হাসিমুখ। মনে পড়ছে? হ্যাঁ, ভারতীয় মালয়ালম ‘আভেশাম’ সিনেমার রাঙার চরিত্রে অভিনয় করছিলেন দুজন। সিনেমায় রাঙা যেমন কখনও ঠান্ডা, কখনও আবার বেজায় রাগী।

ঠিক তেমন এই দুজনেরও চরিত্রে মিল আছে। দুজনই পেসার। জোরে বল করতে পারেন। সুইং আছে, ব্যাটসম্যানদের পড়ার ক্ষমতা আছে। নিজের দিনে প্রতিপক্ষের চোখের জলে নাকের জলে করার দক্ষতাও আছে। ফিজ-পাথিরানার বন্ধুত্বের গল্পও ছড়িয়েছে বেশ। চেন্নাইয়ের শিবিরে একসঙ্গে গুঁড়িয়েছেন প্রতিপক্ষকে। কিন্তু বিশ্বকাপে তারা নামবেন একে অন্যের প্রতিপক্ষ হয়ে। দুদলের সেরা পেসার হয়েই দায়িত্ব সামলাবেন।

সাম্প্রতিক সময়ে বাংলাদেশ-শ্রীলঙ্কা দ্বৈরথ ভিন্ন মাত্রা পেয়েছে। বাংলাদেশের মাটিতে সর্বশেষ সিরিজেও দেখা গেছে তেমন চিত্র। সেই দ্বৈরথ ছাপিয়ে মুস্তাফিজ-পাথিরানাকে এক করেছে ধোনির চেন্নাই। এক ড্রেসিংরুম শেয়ার করেছেন, আইপিএলে একই দলের হয়ে মাঠ মাতিয়েছেন। ফেসবুকের কল্যাণে তাদের খুনসুটির খবরও এক-আধটু করে অনেকটা জানা হয়েছে। দুজনের মাঝে গড়ে উঠেছে বন্ধুত্ব। একজন আরেকজনকে প্রশংসায় ভাসাচ্ছেন। তবে এবার মাঠে দেখা যাবে লড়াইয়ে। বন্ধু হয়ে উঠবে শত্রু।

মুস্তাফিজুর এদিকে নিজেকে হারিয়ে খুঁজছিলেন। ধুঁকছিলেনও। ফেরাটা জরুরি ছিল। লাল-সবুজ জার্সিতে সেটা হয়েও হয়নি। শ্রীলঙ্কা সিরিজে ছিলেন সাদামাটা। খেলেছেন রয়ে-সয়ে। বোলিংয়ে ধার ছিল না। ব্যাটসম্যানকে পড়তেই ব্যর্থ হচ্ছিলেন। কথা চাউর হয়েছিল, ফিজের কী তবে এটাই শেষের শুরু। টিকে থাকার লড়াইয়ে ফিজ কী উল্টো পথে হাঁটছেন? ‘কাটার মাস্টার’ কাটারে কাট করেই তবে ফিরেছেন। ধ্বংসস্তূপ থেকে ফিনিক্স পাখি যেভাবে ফেরে। অনেকটা সেভাবে। ফিরেছেন সুর-তাল-লয়ে। সপ্তদশ আইপিএলের প্রথম ম্যাচেই প্রত্যাবর্তন। চেন্নাইয়ের জয় ছাপিয়ে ‘টক অব দ্য ওয়ার্ল্ড’। কী দারুণ তেলেসমাতি। ৪ ওভারে ২৯ রান। সঙ্গে ৪ উইকেট। ম্যাচ শেষে ফিজ পেয়েছেন ম্যান অব দ্য ম্যাচ পুরস্কার। সেই শুরুর পর এবার বিশ্বকাপেও আকাঙ্ক্ষিত কাটার মাস্টারকে পাওয়ার প্রত্যাশাও বাড়ছে।

মুস্তাফিজকে আইপিএলে পুরো মৌসুমের জন্য রেখে দিতে চেন্নাই সুপার কিংসের কী তৎপরতা। তাকে রেখে দিতে বাংলাদেশের ক্রিকেট বোর্ডকে অনুরোধও করেছিল চেন্নাই ম্যানেজমেন্ট। বাংলাদেশের ক্রিকেট বোর্ড কর্তাদের মন গলেনি। যদিও জিম্বাবুয়ের বিপক্ষে টি-টোয়েন্টি সিরিজে তেমন আলো ছড়াতে না পারলেও যুক্তরাষ্ট্রের বিপক্ষে চেনা রূপে ফেরেন ফিজ।

বাংলাদেশের বোলিং ইউনিটে যখন চোটের হানা তখন ফিজের ওপর পড়তে যাচ্ছে বাড়তি দায়িত্ব। সবেমাত্র চোট সেরে ফিরেছেন তাসকিন আহমেদ। লঙ্কানদের বিপক্ষে খেলতে পারবেন না শরিফুল ইসলাম। তানজিদ হাসান সাকিবকে দলে রাখলেও অভিজ্ঞ ফিজের ওপর দায়িত্ব বাড়ছে। লঙ্কানদের বিপক্ষে ফিজ তেলেসমাতির ওপর নির্ভর করছে দল। 

এদিকে শ্রীলঙ্কা আছে বেশ চাপে। বিশ্বকাপের শুরুটা তাদের মোটেও ভালো হয়নি। ব্যাটিং ধসের পর বোলিংয়ে চেষ্টা করা হলেও তা ধোপে টেকেনি। বড় হারে শুরু, ফিরতে নিশ্চয় চাইবেন লঙ্কানরা। বাংলাদেশকে তাই আরেকটু সতর্ক হতে হবে। বিশেষ করে ব্যাটারদের বড় পরীক্ষায় পড়তে হতে পারে। ফিজের বন্ধু পাথিরানা হতে পারে বাংলাদেশের টপ অর্ডারের জন্য দুর্ভাবনার। শেষ বছরটি দুর্দান্ত কাটানো লঙ্কান এই পেসার প্রোটিয়াদের বিপক্ষে আগুনে গোলা ছুড়েছিলেন।

বিশ্বকাপের প্রথম ম্যাচে শুরুর দিকে তিন ওভারে খরচ করেছিলেন মোটে ১২ রান। আটটি ডট বলের ইনিংসে কোনো বাউন্ডারি হাঁকাতে পারেনি প্রোটিয়ারা। উইকেট না পেলেও পাথিরানা দেখিয়েছেন লাইন লেন্থ ও গতির বৈচিত্র্য। ডালাসে তিনিই হয়ে উঠতে পারেন লঙ্কানদের মারণাস্ত্র। বাংলাদেশকে সাবধানী হতে হবে। মুস্তাফিজকেও বড় দায়িত্ব নিতে হবে। লঙ্কান টপ অর্ডার রোখার বড় দায়িত্ব ফিজের কাঁধে।

শেয়ার করুন-

মন্তব্য করুন

Protidiner Bangladesh

সম্পাদক : মুস্তাফিজ শফি

প্রকাশক : কাউসার আহমেদ অপু

রংধনু কর্পোরেট, ক- ২৭১ (১০ম তলা) ব্লক-সি, প্রগতি সরণি, কুড়িল (বিশ্বরোড) ঢাকা -১২২৯

যোগাযোগ

প্রধান কার্যালয়: +৮৮০৯৬১১৬৭৭৬৯৬ । ই-মেইল: [email protected]

বিজ্ঞাপন (প্রিন্ট): +৮৮০১৯১১০৩০৫৫৭, +৮৮০১৯১৫৬০৮৮১২ । ই-মেইল: [email protected]

বিজ্ঞাপন (অনলাইন): +৮৮০১৭৯৯৪৪৯৫৫৯ । ই-মেইল: [email protected]

সার্কুলেশন: +৮৮০১৭১২০৩৩৭১৫ । ই-মেইল: [email protected]

বিজ্ঞাপন মূল্য তালিকা