× ই-পেপার প্রচ্ছদ বাংলাদেশ রাজনীতি দেশজুড়ে বিশ্বজুড়ে বাণিজ্য খেলা বিনোদন মতামত চাকরি ফিচার চট্টগ্রাম ভিডিও সকল বিভাগ ছবি ভিডিও লেখক আর্কাইভ কনভার্টার

খালের ধারে গাছের ছায়ায় শেখ হাসিনার স্মৃতি রোমন্থন

প্রবা প্রতিবেদন

প্রকাশ : ১০ মে ২০২৪ ১৮:৩৬ পিএম

আপডেট : ১০ মে ২০২৪ ২০:২৩ পিএম

সোনালু গাছের নিচে দাঁড়িয়ে ছবি তুলছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ও তার ছোট বোন শেখ রেহানা। শুক্রবার গোপালগঞ্জের টুঙ্গিপাড়ায়। ছবি : ইয়াসিন কবির জয়

সোনালু গাছের নিচে দাঁড়িয়ে ছবি তুলছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ও তার ছোট বোন শেখ রেহানা। শুক্রবার গোপালগঞ্জের টুঙ্গিপাড়ায়। ছবি : ইয়াসিন কবির জয়

বৈশাখের তপ্ত দুপুর। গ্রামের রাস্তা। দুই পাশে সোনালু ও কৃষ্ণচূড়া গাছ। এই পথ ধরে হাঁটছেন সরকারপ্রধান। সঙ্গী আছেন আরও অনেকে। উদ্দেশ্য একটি অনুষ্ঠানে যোগদান। গন্তব্যের আগে রয়েছে মধুমতী নদীর সঙ্গে যুক্ত একটি খাল। এই খালের ধারে পৌঁছে যেন তিনি ফিরে গেলেন শৈশবে। কারণ এই গ্রামেই যে তার জন্ম ও বেড়ে ওঠা।

বলছি, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার কথা। শুক্রবার (১০ মে) নিজ গ্রামের বাড়ি গোপালগঞ্জের টুঙ্গিপাড়ায় এক অনন্য দৃশ্যের অবতারণা ঘটালেন তিনি। টুঙ্গিপাড়ার বাসভবন থেকে উপজেলা আওয়ামী লীগ কার্যালয়ে যাওয়ার পথে খালের ধারে গাছের ছায়ায় গিয়ে দাঁড়ান শেখ হাসিনা। সেখানে সোনালু গাছের নিচে দাঁড়িয়ে ছোট বোন শেখ রেহানাকে নিয়ে ছবি তুলেন তিনি।

প্রধানমন্ত্রীর চিত্রগ্রাহক ইয়াসিন কবির জয় সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের দুই কন্যার শৈশবে ফিরে যাওয়ার এই ক্ষণ ক্যামেরায় ধারণ করেছেন। নিজের অভিজ্ঞতা সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে ভাগাভাগি করে ইয়াসিন কবির লিখেছেন, ‘নিজ গ্রামের সবুজঘেরা মায়াময় পরিবেশে ছোট বোন শেখ রেহানাকে নিয়ে যেন শৈশবে ফিরে গেলেন বঙ্গবন্ধুকন্যা প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। ছবি তুললেন সোনালু গাছের নিচে দাঁড়িয়ে। টুঙ্গিপাড়ার বাসভবন থেকে উপজেলা আওয়ামী লীগ কার্যালয়ে যাওয়ার পথে অবতারণা ঘটে এই অনন্য দৃশ্যের। সোনালু ও কৃষ্ণচূড়াগাছের ছায়া সুনিবিড় পথ পায়ে হেঁটে পেরোবার সময় প্রধানমন্ত্রী মধুমতী নদীর সঙ্গে যুক্ত খালের পাশে দাঁড়িয়ে পড়েন হঠাৎ। কাছে ডেকে নেন ছোট বোন শেখ রেহানাকে। যে গ্রামে জন্ম ও বেড়ে ওঠা, সেই পিতৃভূমিতে সোনালুগাছের ছায়ায় ছোট বোনকে নিয়ে যেন ফিরে গেলেন শৈশবের স্মৃতিময় দিনগুলোতে।’

এর আগে সকালে ব্যক্তিগত সফরে প্রধানমন্ত্রী ও আওয়ামী লীগ সভাপতি শেখ হাসিনা পদ্মা সেতু দিয়ে সড়কপথে পৈতৃকনিবাস গোপালগঞ্জের টুঙ্গিপাড়ায় পৌঁছান। সেখানে পৌঁছানোর পরপরই শেখ হাসিনা তার বোন শেখ রেহানা ও পরিবারের অন্য সদস্যদের সঙ্গে নিয়ে জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের সমাধিতে পুষ্পস্তক অর্পণের মাধ্যমে শ্রদ্ধা নিবেদন করেন। পুষ্পস্তবক অর্পণের পর শেখ হাসিনা স্বাধীন বাংলাদেশের স্থপতির স্মৃতির প্রতি গভীর শ্রদ্ধা জানিয়ে সেখানে কিছুক্ষণ নীরবে দাঁড়িয়ে থাকেন।  

পরে টুঙ্গিপাড়া উপজেলা আওয়ামী লীগের কার্যালয়ে ‘দরিয়ারকুল গ্রাম উন্নয়ন সমিতি’র সদস্যদের সঙ্গে মতবিনিময় করেন প্রধানমন্ত্রী। এ সময় তিনি সংক্ষিপ্তভাবে বহুমাত্রিক কর্মসূচির বর্ণনা দেন; যার মধ্যে রয়েছে ‘আমার বাড়ি, আমার খামার’, জনগণকে আর্থিক অনুদান প্রদান, সার্বজনীন পেনশন প্রকল্প এবং গ্যারান্টি ছাড়া ঋণ প্রদান, সমাজ থেকে দারিদ্র্যবিমোচন করার জন্য যুবকদের যথাযথ প্রশিক্ষণ প্রদান ইত্যাদি।

এ সময় প্রধানমন্ত্রী দেশের প্রতিটি এলাকায় সমবায় সমিতি গঠন করে খাদ্য উৎপাদন বৃদ্ধি, ক্ষুদ্র সঞ্চয়ের মাধ্যমে দারিদ্র্য দূরীকরণে আওয়ামী লীগ নেতাদের আন্তরিক হওয়ার আহ্বান জানান। এ ছাড়া প্রধানমন্ত্রী পরিবেশ রক্ষায় তার দলের বৃক্ষরোপণ কর্মসূচির অংশ হিসেবে বর্ষাকালে আওয়ামী লীগের প্রত্যেক সদস্যকে অন্তত তিনটি করে গাছের চারা লাগানোর আহ্বান জানান।

শেয়ার করুন-

মন্তব্য করুন

Protidiner Bangladesh

সম্পাদক : মুস্তাফিজ শফি

প্রকাশক : কাউসার আহমেদ অপু

রংধনু কর্পোরেট, ক- ২৭১ (১০ম তলা) ব্লক-সি, প্রগতি সরণি, কুড়িল (বিশ্বরোড) ঢাকা -১২২৯

যোগাযোগ

প্রধান কার্যালয়: +৮৮০৯৬১১৬৭৭৬৯৬ । ই-মেইল: [email protected]

বিজ্ঞাপন (প্রিন্ট): +৮৮০১৯১১০৩০৫৫৭, +৮৮০১৯১৫৬০৮৮১২ । ই-মেইল: [email protected]

বিজ্ঞাপন (অনলাইন): +৮৮০১৭৯৯৪৪৯৫৫৯ । ই-মেইল: [email protected]

সার্কুলেশন: +৮৮০১৭১২০৩৩৭১৫ । ই-মেইল: [email protected]

বিজ্ঞাপন মূল্য তালিকা